Templates by BIGtheme NET
শিরোনাম

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের স্লোগান নকল করেছেন

ভারতের পশ্চিমবঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেসের স্লোগান ‘জয় হিন্দ’ ও ‘জয় বাংলা’ নিয়ে বিতর্কে মেতেছেন বিরোধীদলীয় নেতাকর্মীরা।

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের স্লোগান নকল করেছেন বলে অভিযোগ করছেন তারা।

বিজেপির ‘জয় শ্রী রাম’ ধ্বনির বিপরীতে দলের নেতাকর্মীদের ‘জয় হিন্দ’ ও ‘জয় বাংলা’ স্লোগান দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এ বিষয়ে ভারতের কমিউনিস্ট পার্টির কেন্দ্রীয় নেতা ও পলিট ব্যুরো সদস্য মোহাম্মদ সেলিম বলেছেন, ‘১৯৭১ সালে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে জয় বাংলা স্লোগান তুলেছিলেন শেখ মুজিবুর রহমান। সেই স্লোগানই আওড়াচ্ছেন তৃণমূল নেত্রী।’

তিনি বলেন, ‘তৃণমূল সভানেত্রী শুধু নকলই করতে জানেন।’

এক ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে মোহাম্মদ সেলিম বলেন, ‘আগে বাংলা যা ভাবত, ভারত তা পরে ভাবত। জয় শ্রী রাম পুরো দেশ দেখেছে। এবার বাংলায় এসেছে স্লোগানটি। নব্বইয়ের দশকে রাম মন্দির আন্দোলনেই জয় শ্রী রাম ধ্বনি উঠেছিল। জয় হিন্দ স্লোগানও আজাদ হিন্দ ফৌজের।’

মোহাম্মদ সেলিমের এমন বক্তব্যকে স্বীকার করে নিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে জয় বাংলা স্লোগান ব্যবহৃত হয়েছিল।’

তবে সেই বিষয়কে নকল করেননি বলে জানিয়েছেন তিনি।

মমতার দাবি, জয় বাংলা স্লোগান প্রথম তুলেছিলেন বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলাম। তিনি এপার-ওপার দুই বাংলারই সম্পদ।

নিমতায় মৃত দলীয় নেতার পরিবারকে দেখতে দিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দাবি করেন, বিষয়টি দেশ নয়, বাংলা ভাষার সঙ্গে সম্পর্কিত। যাদের সম্পর্ক বাংলা থেকে দূরে তাদের মাথায় তা ঢুকবে না।

প্রসঙ্গত সদ্য অনুষ্ঠিত লোকসভা নির্বাচনের আগে পশ্চিমবঙ্গের চন্দ্রকোনায় মমতা ব্যানার্জির গাড়িবহরের সামনে ‘জয় শ্রী রাম’ জয়ধ্বনি তোলেন ক্ষমতাসীন বিজেপিকর্মীরা। সেখান থেকেই এ স্লোগান ঘিরে বিতর্কের সূত্রপাত হয়।

এর পর নির্বাচনী প্রচারে ‘জয় শ্রী রাম’ ইস্যুকে ব্যবহার করে দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি পশ্চিমবঙ্গ এসে মমতার উদ্দেশে ব্যঙ্গ করে বলেন, ‘জয় শ্রী রাম দিদি। আমায় জেলে ঢোকান।’

মোদির এমন খোঁচায় পাল্টা জবাবে মমতা জানান, ‘জয় শ্রী রাম বাংলার সংস্কৃতি নয়। বিজেপির এই স্লোগান আমরা উচ্চারণ করব না।’

এর পরই নিজ দলের জন্য জয় শ্রী রামের বিপরীতে ‘জয় হিন্দ’ ও ‘জয় বাংলা’ স্লোগানের প্রচার শুরু করেন মমতা।

‘জয় বাংলা’-কে জনপ্রিয় করতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমকে ব্যবহার করে দলটি।

এর আগে অবশ্য ‘জয় শ্রী রাম’ ও জয় বাংলা স্লোগান নিয়ে বিতর্ককে থামিয়ে দিতে চেয়েছিলেন পশ্চিমবঙ্গের বিজেপি সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

এক সমাবেশে তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছিলেন, জয় হিন্দ বা জয় বাংলা বলতে বিজেপির আপত্তি নেই।


Print pagePDF pageEmail page

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

See In Your Language