Templates by BIGtheme NET
শিরোনাম

সিরিয়ার অভিযান চালানো নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রকে দু’বার হুশিয়ারি দিয়েছে রাশিয়া

সিরিয়ার ইদলিবে অভিযান চালানো নিয়ে গত সপ্তাহেই যুক্তরাষ্ট্রকে দু’বার হুশিয়ারি দিয়েছে রাশিয়া। পাল্টা রাশিয়াকে হুমকি দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

হুশিয়ারির সুরে মস্কো জানিয়েছে, যেখানে যুক্তরাষ্ট্রের কয়েক ডজন সেনা রয়েছে, সেখানে সিরীয় সরকারি বাহিনীর সঙ্গে সামরিক অভিযান চালাতে প্রস্তুত রাশিয়া।

দেশটির অভিযোগ- সিরিয়ায় জঙ্গিদের সুরক্ষা দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের সেনারা। মার্কিন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে শুক্রবার এ খবর দিয়েছে সিএনএন। এদিকে ইদলিবে রাসায়নিক হামলার জন্য সিরিয়া প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে অভিযোগ তুলেছে যুক্তরাষ্ট্র। বিশ্লেষকরা বলছেন, ইদলিবে হামলার বাহানা খুঁজছে ওয়াশিংটন।

আর এ জন্যই সিরীয় সরকারের বিরুদ্ধে নতুন করে অভিযোগের তীর ছুড়ছে দেশটি। প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের সরকার সিরিয়াজুড়ে বিদ্রোহীদের দমন করতে পারলেও ইদলিবে এখনও বিদ্রোহীদের শক্ত ঘাঁটি রয়েছে।

ধারণা করা হচ্ছে, দেশটির দীর্ঘদিনের গৃহযুদ্ধের শেষ বড় ধরনের লড়াই হবে এখানেই। জাতিসংঘের তথ্য অনুসারে, ইদলিবে এখনও ১০ হাজার আল নসুরা ও আল কায়দা সদস্য অবস্থান করছে। সিরিয়ার সরকারি বাহিনী জানিয়েছে, তারা বিদ্রোহীদের শেষ শক্তিশালী ঘাঁটি ইদলিবে অভিযান চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে।

এমন পরিস্থিতিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বুধবার টুইটারে হুশিয়ারি দিয়ে বলেন, ‘ইদলিবে হামলা আমাদের রাগকে বাড়িয়ে দেবে। এ বেপরোয়া অভিযান হবে বড় ধরনের মানবিক ভুল। এতে কয়েক হাজার মানুষ প্রাণ হারাতে পারে।’ সতর্ক করেছে মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ও। জাতিসংঘ সতর্ক করে বলেছে, ইদলিবে হামলা চালালে সেখানে ‘রক্তবন্যা’ হয়ে যেতে পারে।

মস্কোর হুশিয়ারিতে মার্কিন কমান্ডাররা উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েছেন। তাদের সেনারা হামলার শিকার হন কিনা তা নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েছেন বলে কয়েকজন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তার বরাতে জানিয়েছে সিএনএন।

এদিকে, ইদলিবে রাসায়নিক অস্ত্র হামলার জন্য সিরিয়া প্রস্তুত হচ্ছে বলে নতুন করে অভিযোগ তুলেছে যুক্তরাষ্ট্র। বৃহস্পতিবার সিরিয়াবিষয়ক নতুন মার্কিন উপদেষ্টা জিম জেফ্রে বলেন, আসাদ সরকার রাসায়নিক অস্ত্র প্রস্তুত করছে বলে ‘প্রচুর আলামত’ পাওয়া গেছে। তিনি আশঙ্কা করেন, সিরিয়ার বিদ্রোহীদের নিয়ন্ত্রণে থাকা সর্বশেষ শক্ত ঘাঁটিটিতেও রাসায়নিক হামলা চালানো হতে পারে।

গত ১৭ আগস্ট নিয়োগ পাওয়া জেফ্রে সতর্ক করে বলেন, ইদলিবে যে কানো আক্রমণই আমাদের জন্য আপত্তিযোগ্য।


Print pagePDF pageEmail page

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

See In Your Language