Templates by BIGtheme NET
শিরোনাম

গাইবান্ধায় প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে আগুনে পুড়ে মারার অপচেষ্টা ॥ উল্টো হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি: প্রতিপক্ষকে ঘায়েল করতে গাইবান্ধা সদর থানায় মিথ্যা মামলা দায়ের করায় এলাকায় গ্রামবাসিদের মধ্যে চরম উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। জমিজমা সংক্রান্তের জের ধরে সদর উপজেলার পশ্চিম খোলাবাড়ি গ্রামের জাহিদুল ইসলাম কর্তৃক উল্টো হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা দায়েরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফলে ফারুকুলের পরিবার এখন চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও গ্রামবাসিরা জানায়, দীর্ঘদিন যাবত গাইবান্ধা সদর উপজেলার বল¬¬মঝাড় ইউনিয়নের পশ্চিম খোলাবাড়ি গ্রামের ফারুকুল ইসলাম ও জাহিদুল ইসলামের পরিবারের মধ্যে জমিজমা দখলের চেষ্টায় একাধিক মামলা চলমান রয়েছে। এতদসত্ত্বেও গত ১৭ মার্চ দুপুরে মধ্যযুগীয় কায়দায় জাহিদুলের নেতৃত্বে ১০ থেকে ১২ জনের একটি সন্ত্রাসী দল ছোরা, লাঠি, বেকিসহ অন্যান্য ধারালো অস্ত্র সশস্ত্র অবস্থায় প্রথমে তারা ফারুককে চারদিক থেকে ঘেরাও করে কথিত প্রতিবন্ধীকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করে ফারুকের উপর আঘাত করতে থাকে। এসময় ফারুকের আত্মচিৎকারে গ্রামবাসিরা দ্রুত ঘটনাস্থলে এলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। পরে ফারুকুলকে ঘায়েল করতে প্রতিপক্ষ উল্টো ফারুকসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে সদর থানায় মিথ্যা মামলা দায়ের করে।
এদিকে গত ১৮ মার্চ গভীর রাতে আব্দুর রহমান ও শাহীনের নেতৃত্বে ১০ থেকে ১২ জনের একটি সন্ত্রাসী দল পূর্বের ন্যায় ছোরা, লাঠি, বেকিসহ অন্যান্য ধারালো অস্ত্র সশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ফারুকুলের বসতবাড়িতে হামলা চালায় এবং বসতবাড়িতে আগুন লাগিয়ে পরিবারের লোকজনকে পুড়িয়ে মারার অপচেষ্টা চালায়। এসময় ফারুকুলের বাড়ির লোকজনের আত্মচিৎকারে গ্রামবাসি এবং ফায়ার সার্ভিসে খবর দিলে দমকল বাহিনী এসে আগুন নেভায়। শাহীন মিয়া ও জাহিদুল একের পর এক সন্ত্রাসী ঘটনায় গ্রামে চরম উত্তেজনার আশংকায় হওয়ায় যে কোন মুহুর্তে রক্ষক্ষয়ী ঘটনা ঘটতে পারে বলে গ্রামবাসিরা অভিযোগ করেন। ফারুকুলের পরিবার এসব ঘটনায় সুষ্ঠু ও ন্যায়সংগত প্রতিকার দাবি করে পুলিশ সুপারসহ উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।


Print pagePDF pageEmail page
Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*